Monday, September 2, 2013

মুকুন্দরাম কবিকঙ্কন চণ্ডীকাব্য থেকে ৫৫০ বছরের আগের বাংলার সমাজ, Bengal 550 years back, written in Kabikankan Chandi by Mukundaram

নিদয়ার সাধ ভোজন

গর্ভের দেখিয়া ভর,            মনে লাগে বড় ডর,
          ক্ষুধা তৃষ্ণা নাহি দিন দশ।
আপনার মত পাই,             তবে গ্রাস দুই খাই,
          পোড়া মাছে জামিরের রস।।
নিধানী করিয়া খই,            তাহাতে মহিষা দই
          কুল করঞ্জা প্রাণ হেন বাসী।
যদি পাই সাজ ঘল,            পাকা চালিতার কজল
          প্রাণ পাই পাইলে আমসি।।
আমার সাধের সীমা,           হেলেঞ্চা কল্মী গিমা,
          বোদালি কাটিয়া কর পাক।
ঘঙ্কাটি খড় জ্বালে, সান্তলিবে কটুতৈলে,
          দিবে তাতে পলতার শাক।।
পুঁইডগা মুখী কছু,              ফুল বড়ি আর কিছু,
          দিবে তথি মরিচের ঝাল।
সন্তলন করি কাঁজি,            উদর পুরিয়া ভুঞ্জি,
          প্রাণ পাই পাইলে পাঁকাল।।
লোণ কিছু দিয়া বাড়া,          নকুল গোধিকা পোড়া
          হংস ডিমে তোল কিছু বড়া।
ভাজ কিছু রাই খাড়া,          চিঙ্গড়ির কর বড়া,
          সজারু করহ শিক-পোড়া।।
সদাই ন্যাকার উঠে,           দিনে দিনে বল টুটে
          বদনে সঘনে উঠে জল।
মুলা বেগুনেতে সিম,           তাহে দিয়া রান্ধ নিম,
          তাহে দেও উড়ূমদর ফল।।
Post a Comment